• মে ২১, ২০১৯
  • জাতীয়
  • 16
শিক্ষিকাকে ধর্ষণের দায়ে প্রধান শিক্ষকের যাবজ্জীবন

নিউজ ডেস্ক: কুষ্টিয়ায় শহরের আবাসিক হোটেলে শিক্ষিকাকে ধর্ষণের দায়ে প্রধান শিক্ষককে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে ধর্ষককে ১ লাখ টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরো ৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দেওয়া হয়।

আজ মঙ্গলবার (২১ মে) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে কুষ্টিয়ার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মুন্সী মো. মশিয়ার রহমান এ রায় দেন।

দণ্ডাদেশ পাওয়া শরিফুল ইসলাম মেহেরপুরের মুজিবনগর উপজেলার আম্রকানন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক।

আদালত-সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ২০১৬ সালের ১৩ মে আম্রকানন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শরিফুল ইসলাম বিদ্যালয়ের খ্রিস্টান ধর্ম শিক্ষিকাকে নিয়ে নিবন্ধন পরীক্ষায় অংশ নিতে কুষ্টিয়া শহরে যান। শহরের বড় বাজারে আল আমিন হোটেলে মামা-ভাগ্নি পরিচয় দিয়ে পাশাপাশি দুটি কক্ষ ভাড়া নেন। সকাল সাড়ে ৭টার দিকে শরিফুল ওই শিক্ষিকার কক্ষে ঢুকে ধর্ষণ করেন। এ সময় বিষয়টি কাউকে না জানাতে হত্যার হুমকি দিয়ে প্রধান শিক্ষক চলে যান। পরে হোটেলের কর্মীরা অসুস্থ অবস্থায় ওই শিক্ষিকাকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেন।

এ ঘটনায় শিক্ষিকা বাদী হয়ে প্রধান শিক্ষক শরিফুল ইসলামকে আসামি করে কুষ্টিয়া মডেল থানায় মামলা করেন। পুলিশ ২০১৬ সালের ১ অক্টোবর আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। দীর্ঘ শুনানি শেষে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০-এর ১৬ ধারা অনুযায়ী আদালত আজ এ রায় ঘোষণা করেন।

কুষ্টিয়া নারী ও শিশু আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) অ্যাডভোকেট আকরাম হোসেন দুলাল রায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।