• সেপ্টেম্বর ৯, ২০১৯
  • লাইফ স্টাইল
  • 70
ইন্টারভিউয়ে ‘বেতন’ প্রসঙ্গে কথা বলবেন যেভাবে

লাইফস্টাইল ডেস্কঃ চাকরির ইন্টারভিউতে বেতন নিয়ে প্রশ্ন করলে বিব্রত হয়ে যান অনেকেই। কীভাবে কথা শুরু করবেন, কতো টাকার কথা বলবেন তা নিয়ে দ্বিধায় পড়ে যান বেশিরভাগ মানুষ। আর এই সুযোগে চাকরিদাতারা আপনার আত্মবিশ্বাসের পরীক্ষা নেন। সেই সাথে একটু কম বেতনে রাজি করানোর ফন্দি আঁটতে থাকেন।

চাকরির ইন্টারভিউতে বেতন প্রসঙ্গে কথা বলার জন্য আগে থেকেই নিজেকে প্রস্তুত করে নিতে হবে। স্মার্ট ভাবে বেতন প্রসঙ্গ সামাল না দিলে হয় চাকরির জন্য আপনাকে নির্বাচন করা হবে না অথবা কম বেতনে নিয়োগ দেয়ার প্রস্তাব দেয়া হবে। জেনে নিন নিজেকে কীভাবে প্রস্তুত করবেন সেই বিষয়ে:

মার্কেট রিসার্চ: চাকরির ইন্টারভিউতে বেতন প্রসঙ্গে কথা বলার জন্য আগে থেকেই মার্কেট রিসার্চ করুন। আপনার সমান দক্ষতা এবং পদমর্যাদায় যারা অন্য অফিসে চাকরি করছেন তারা কতো বেতন পাচ্ছেন সেই বিষয়ে জানার চেষ্টা করুন।

নিজের প্রত্যাশার কথা ভাবুন: আপনার জীবনধারণ এবং সঞ্চয়ের জন্য কতো অর্থের প্রয়োজন সেটা হিসাব করুন। বেতনের প্রসঙ্গে কথা বলার সময় নিজের প্রত্যাশাকে গুরুত্ব দিন।

বেতনের প্রসঙ্গে যখন কথা বলবেন: ইন্টারভিউয়ের শুরুতেই বেতনের প্রসঙ্গ তুলবেন না। আগে নিজের সম্পর্কে ভালো ধারণা তৈরি করুন সাক্ষাৎকার গ্রহণকারীদের মনে। নিজের দক্ষতা সম্পর্কে তাদেরকে জানান। চাকরির পদটির জন্য আপনিই কেন যোগ্য প্রার্থী, সেটা তাদেরকে বুঝিয়ে দিন। এরপর একদম শেষ পর্যায়ে বেতনের কথা তুলুন।

কৌশলী হতে হবে: বেতন প্রসঙ্গে কথা বলার সময় কৌশলী হতে হবে। আপনার আগের অর্জনগুলো সম্পর্কে জানাতে হবে। আপনার অভিজ্ঞতাগুলোকে কাজে লাগিয়ে কীভাবে কোম্পানির উন্নতি করা সম্ভব তা বুঝাতে হবে। মোট কথা, নতুন চাকরীটা নিয়ে আপনার উৎসাহ এবং আত্মবিশ্বাস দেখাতে হবে। -টাইমস অব ইন্ডিয়া