• জুলাই ৩০, ২০২০
  • শীর্ষ খবর
  • 84
কুশিয়ারার উৎসমুখ অমলসিদে বাড়ছে পানি

নিউজ ডেস্কঃ বাংলাদেশ-ভারত সীমান্ত এলাকায় ভারী বৃষ্টি হওয়ায় সিলেটের দীর্ঘতম নদী কুশিয়ারার উৎসমুখ অমলসিদ পয়েন্টে পানি বাড়ছে। সিলেটে সীমান্ত নদী হিসেবে পরিচিতি সারী ও লোভার পানি বাড়ায় সুরমা নদীর কানাইঘাট পয়েন্টে পানি বুধবার রাতে বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল। বৃহস্পতিবার সকালে পানি বিপৎসীমার নিচে নেমেছে। বৃহস্পতিবার পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) সিলেটের নির্বাহী প্রকৌশলী মুহাম্মদ শহীদুজ্জামান সরকার এ তথ্য জানিয়েছেন।

সিলেট অঞ্চলের দীর্ঘতম নদী সুরমা ও কুশিয়ারা। এ দুটো নদীর পানি বাড়লে অন্যান্য নদ-নদী ও হাওর এলাকায় পানি বাড়ে। কানাইঘাট উপজেলায় লোভা নদীর সঙ্গে সংযোগ থাকায় বর্ষাকালে সুরমা নদীতে পাহাড়ি ঢল নামে লোভাছড়া এলাকা থেকে। কুশিয়ারা নদী সিলেট জেলাসহ সুনামগঞ্জ, মৌলভীবাজার ও হবিগঞ্জের একাংশ দিয়ে প্রবহমান। এ নদীর উৎসমুখ ভারতের বরাক এলাকার পাশে সিলেটের জকিগঞ্জ উপজেলার অমলসিদ। এই অংশটি কুশিয়ারার উজান হিসেবে পরিচিত।

পাউবো জানায়, ১৬ জুলাই থেকে অমলসিদে কুশিয়ারার পানি কমছিল। এ কারণে এ নদীর ভাটির অংশের তিনটি পয়েন্টে বিয়ানীবাজারের শেওলা, মৌলভীবাজারের শেরপুর দিয়ে পানি কমছিল। অপরিবর্তিত ছিল নদীর মধ্যবর্তী অংশ সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জ। বুধবার থেকে সীমান্তের ওপারে ভারী বৃষ্টি হওয়ায় সীমান্ত এলাকার নদ-নদীগুলোর পানি বাড়ে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে পানি বাড়ে কুশিয়ারার অমলসিদ পয়েন্টে।

পাউবোর দৈনিক পানির স্তর-সম্পর্কিত তথ্য থেকে জানা গেছে, অমলসিদ পয়েন্টে কুশিয়ারার পানির বিপৎসীমা ১৫ দশমিক ৪০ মিটার। সেখানে পানি প্রবাহিত হচ্ছিল বিপৎসীমার নিচ দিয়ে। বৃহস্পতিবার সকাল ৯টায় অমলসিদে কুশিয়ারার পানি প্রবাহিত হয় ১৪ দশমিক ৭৮ মিটার দিয়ে।

জৈন্তাপুর ও কানাইঘাট উপজেলা দিয়ে প্রবাহিত সারী ও লোভা নদী সিলেটের সীমান্ত নদী হিসেবে পরিচিত। পাউবোর দৈনিক পানির স্তর-সম্পর্কিত তথ্যে দেখা গেছে, বৃহস্পতিবার সকালে লোভার পানি বেড়েছে। কমেছে সারীর পানি। সকাল ৬টায় লোভার পানি ১৩ দশমিক ৯১ মিটার থেকে বেড়ে দুপুর ১২টায় ১৪ দশমিক ০৬ মিটার দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। লোভার পানি বাড়ায় সুরমা নদীর কানাইঘাট পয়েন্টে বুধবার সন্ধ্যা থেকে বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হয়। বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টায় এক ধাপ কমে ১২ দশমিক ৬২ মিটার দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল। সুরমা নদীর কানাইঘাট পয়েন্টে বিপৎসীমা ১২ দশমিক ৭৫ মিটার।

কানাইঘাট ছাড়াও সিলেট শহর পয়েন্টে সুরমার পানি পরিমাপ করা হয়। সিলেট শহর পয়েন্টেও পানি বাড়ছে। বুধবার সন্ধ্যায় ১০ দশমিক ২৬ মিটার থেকে বেড়ে বৃহস্পতিবার দুপুরে ১০ দশমিক ৯৯ মিটার দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল পানি। সিলেট শহর পয়েন্টে সুরমার পানি বিপৎসীমা ১০ দশমিক ৮০ মিটার।

  • 11
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    11
    Shares