• জুলাই ২২, ২০২০
  • শীর্ষ খবর
  • 164
সিলেটে বাম জোটের পুলিশী হামলার নিন্দা

নিউজ ডেস্কঃ সিলেট জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে বাম গণতান্ত্রিক জোটের অবস্থান কর্মসূচীতে পুলিশের হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন সিলেটের প্রবীণ রাজনীতিবিদ, আইনজীবীসহ বিভিন্ন মহল।

বুধবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে স্বাক্ষর করেন- প্রবীণ রাজনীতিবিদ গণতন্ত্রী পার্টির কেন্দ্রীয় সভাপতি ব্যারিষ্টার আরশ আলী, প্রবীণ রাজনীতিবিদ ও বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. বেদানন্দ ভট্টাচার্য, বিশিষ্ট আইনজীবী এড. এমাদউল্লাহ শহিদুল ইসলাম শাহীন, সাম্যবাদী দল সিলেট জেলার সাধারণ সম্পাদক ধীরেন সিং, জাসদ সিলেট জেলার সভাপতি লোকমান আহমেদ, প্রবীণ রাজনীতিবিদ ও বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. মুজিবুর রহমান চৌধুরী, বাংলাদেশ জাসদ সিলেট জেলার সভাপতি এড. জাকির আহমেদ, গণফোরাম সিলেট জেলার সভাপতি এড. আনসার খান, ওয়ার্কাস পার্টি সিলেট জেলার সভাপতি সিকান্দর আলী, সুজন সিলেট জেলার সভাপতি ফারুক মাহমুদ চৌধুরী, শাবিপ্রবির পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক নাজিয়া চৌধুরী, সিকৃবির সয়েল সাইন্স বিভাগের অধ্যাপক আবুল কাশেম, উদীচি সিলেট জেলার সভাপতি এনায়েত হাসান মানিক, জাসদ সিলেট জেলার সাধারণ সম্পাদক কে.এ কিবরিয়া, বাংলাদেশ জাসদ সিলেট জেলার সাধারণ সম্পাদক নাজাত কবীর, সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এড. হুমায়ুন রশীদ সোয়েব, বিশিষ্ট রবীন্দ্র সংগীত শিল্পী অনিমেষ বিজয় চৌধুরী, সিলেট মহানগর জাসদের সভাপতি মিশফাক আহমেদ মিশু, সাধারণ সম্পাদক গিয়াস আহমেদ, বাপা সিলেট জেলার সাধারণ সম্পাদক আব্দুল করিম কিম, গণজাগরণ মঞ্চ সিলেট জেলার মুখপাত্র দেবাশীষ দেবু, বাংলাদেশ নারীমুক্তি সংসদ সিলেট জেলার সভাপতি ইন্দ্রানী সেন, ভূমিসন্তান বাংলাদেশ এর আশরাফুল কবির, নিনাই সিলেটের সভাপতি ডা. তায়েফ আহমদ চৌধুরী।

এসময় বিবৃতিতে তারা বলেন, সবার জন্য স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করা, বিনামূল্যে করোনা পরীক্ষাসহ ৮ দফা দাবিতে সিলেটের জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে বাম গণতান্ত্রিক জোট সিলেট জেলার অবস্থান কর্মসূচিতে পুলিশী হামলা সংগঠিত হয়েছে। পুলিশী হামলায় আহত হয়েছেন অন্তত ১০ জন। এছাড়াও পুলিশ শুধু হামলাই করেনি, তারা সমাবেশ থেকে ক্যামেরা, মোবাইল, সাউন্ড বক্স, ব্যানার ইত্যাদি ছিনিয়ে নেয়।

বাম গণতান্ত্রিক জোট গত ৫ জুলাই সাংবাদিক সম্মেলনের মাধ্যমে তাদের দাবি ও কর্মসূচি সকলের সামনে তুলে ধরে এবং ধারাবাহিকভাবে সিলেটের চিকিৎসক, আইনজীবী, সাংবাদিক, সামাজিক-সাংস্কৃতিকসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের সাথে মতবিনিময় সভায় মিলিত হয়। একই সাথে তারা সিলেটের গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে সমাবেশ করে। এরই ধারাবাহিকতায় জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে অবস্থান কর্মসূচি পালিত হয়। করোনাকালে দেশের স্বাস্থ্যসেবার ভঙ্গুর দশা সবার সামনে এসেছে। মহামাড়িতে যেখানে বিনামূল্য করোনা পরিক্ষা করা প্রয়োজন ছিল, সেখানে তা না করে জনগণের উপর ফি চাপিয়ে দেয়া হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে বাম গণতান্ত্রিক জোটের সবার জন্য স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করাসহ ৮ দফা দাবিতে আন্দোলন করা।

এছাড়াও এসময় এই হামলায় জড়িতদের দ্রুত শাস্তির আওতায় আনা এবং সিলেটের রাজনীতিতে গণতান্ত্রিক সংস্কৃতি রক্ষায় সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের সচেতনতা কামনা করেন তারা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •