• ডিসেম্বর ৮, ২০২০
  • শীর্ষ খবর
  • 111
সিলেটে চরমোনাই পীরের ওয়াজ মাহফিলের অনুমতি বাতিল করেছে প্রশাসন

নিউজ ডেস্কঃ আগামী ১০-১২ ডিসেম্বর পর্যন্ত তিনদিন ব্যাপী সিলেট আলিয়া মাদরাসা মাঠে ওয়াজ মাহফিলের আয়োজন করেছিলো রাজনৈতিক সংগঠন ইসলামী আন্দোলনের সহযোগী সামাজিক সংগঠন বাংলাদেশ মুজাহিদ কমিটি সিলেট বিভাগীয় শাখা। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে মুফতি সৈয়দ মো. রেজাউল করীম চরমোনাই পীরের বক্তব্য রাখার কথা ছিলো। তবে এ ওয়াজ মাহফিলের অনুমতি দিয়ে সেটি বাতিল করেছে পুলিশ প্রশাসন।

বিষয়টি সিলেটভিউ-কে সোমবার (৭ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় জানান ইসলামী আন্দোলনের সিলেট মহানগর শাখার সেক্রেটারি হাফিজ মাওলানা মাহমুদুল হাসান। তথ্যটি পরে পুলিশ সূত্রও সিলেটভিউ-কে নিশ্চিত করেছে।

প্রতিবছরের মতো এবারও সিলেট আলিয়া মাদরাসা মাঠে ওয়াজ মাহফিলের আয়োজন করে বাংলাদেশ মুজাহিদ কমিটি সিলেট বিভাগীয় শাখা। তবে এবারের ওয়াজ মাহফিল ঘিরে উত্তেজনার তৈরি হয়। মাহফিলের প্রধান অতিথি মুফতি সৈয়দ মো. রেজাউল করীমের ভাই মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীমের ভাস্কর্যবিরোধী বক্তব্যকে কেন্দ্র করে এ পরিস্থিতির সৃষ্টি হয় বলে জানা গেছে। এরই জের ঘরে রোববার (৬ ডিসেম্বর) দুপুরে সিলেট ছাত্রলীগের ব্যানারে বের করা একটি মিছিল থেকে নগরীর আলিয়া মাদ্রাসা মাঠের পাশে নির্মিত ওয়াজ মাহফিলের তোরণে লাগানো ব্যানার ছিঁড়ে তাতে অগ্নিসংযোগ করা হয়।

সৃষ্ট অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে রোবাবর রাতেই মাহফিলের অনুমতি বাতিল করা হয়েছে মর্মে আয়োজক কমিটির নেতৃবৃন্দকে জানিয়ে দেয় সিলেট মহানগর পুলিশ।

এ বিষয়ে সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (মিডিয়া) বিএম আশরাফ উল্যা তাহের সোমবার সিলেটভিউ-কে বলেন, ‘করোনা পরিস্থিতিসহ বিভিন্ন বিষয় বিবেচনা করে পুলিশ কমিশনার মহোদয় বিশেষ ক্ষমতাবলে এই মাহফিলের অনুমতি বাতিল করেছেন।’

তবে ইসলামী আন্দোলনের সিলেট মহানগর শাখার সেক্রেটারি হাফিজ মাওলানা মাহমুদুল হাসান বলেন, ‘পুলিশের পক্ষ থেকে আমাদের জানানো হয়েছে- ওয়াজ মাহফিলে নিরাপত্তা দিতে তারা ব্যর্থ, অনুমতি বাতিল করা হয়েছে।’

এদিকে, প্রশাসনের পক্ষ থেকে অনুমতি বাতিলের পরিপ্রেক্ষিতে মঙ্গলবার দুপুরে ইসলামী আন্দোলন সিলেট মহানগর শাখার উদ্যোগে একটি সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে। সংবাদ সম্মেলনে নেতৃবৃন্দ তাদের দাবি এবং পরবর্তী করণীয় তুলে ধরবেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •