• মে ২৪, ২০২১
  • জাতীয়
  • 69
এক্সসেপ্ট ইসরায়েল বাদ দেওয়া ‘সরকারের নীতিহীন অবস্থান’

নিউজ ডেস্কঃ বাংলাদেশের পাসপোর্ট থেকে ‘এক্সসেপ্ট ইসরায়েল’ বাদ দেওয়ার বিষয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নীরবতাকে ‘সরকারের নীতিহীন অবস্থান’ বলে আখ্যায়িত করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

সোমবার (২৪ মে) বিকেলে গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের দলীয় কার্যালয়ে জরুরি সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায় যখন ফিলিস্তিনের গাজা নগরী মৃত্যুপুরীতে পরিণত হচ্ছে, ঠিক সেই সময় বাংলাদেশের পাসপোর্টে ইসরায়েল বিষয়ে থাকা নিষেধাজ্ঞা সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। যা হতাশ করেছে গোটা বিশ্ববিবেককে।

ফিলিস্তিন-ইসরায়েল সংকট সমাধানে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের বক্তব্যকে ‘তাৎপর্যময়’ অভিহিত করে মির্জা ফখরুল বলেন, মধ্যপ্রাচ্যে শান্তি প্রতিষ্ঠায় এই ‘দুই রাষ্ট্র’ নীতিই একমাত্র সমাধান। সংঘাতের মূল কেন্দ্র জেরুজালেম নগরে ‘আন্তঃসাম্প্রদায়িক লড়াই’ বন্ধ করার প্রতি জো-বাইডেনের উদাত্ত আহ্বান সংকট সমাধানে ফিলিস্তিনের জনগণের অধিকার প্রতিষ্ঠায় মার্কিন গণতন্ত্রপ্রিয় নাগরিকদের দৃঢ় সমর্থনের প্রতি সম্মান প্রদর্শনের সুস্পষ্ট বহিঃপ্রকাশ।

ফিলিস্তিন-ইসরায়েল সংকট নিরসনে এ ধরনের সুস্পষ্ট অবস্থান গ্রহণ করায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ও তার দেশের জনগণের প্রতি আন্তরিক অভিনন্দন ও কৃতজ্ঞতা জানান মির্জা ফখরুল।

তিনি আরও বলেন, আমরা বিশ্বাস করি, জাতিসংঘের প্রস্তাব এবং অসলো চুক্তির আলোকে ফিলিস্তিন-ইসরায়েল সংকট সমাধানে ইসরায়েলের পাশাপাশি ‘ফিলিস্তিন’ রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার ঘোষণা বাস্তবায়নের পথ সুগম করাই হচ্ছে প্রধান চ্যালেঞ্জ।

মির্জা ফখরুল বলেন, শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান ওআইসি, জোট নিরপেক্ষ আন্দোলনসহ বিভিন্ন সংগঠন ও প্লাটফর্মের মাধ্যমে মুসলিম দেশসমূহকে ঐক্যবদ্ধ করার নানা উদ্যোগ নিয়েছিলেন। পরবর্তীকালে দলের চেয়ারপারসন সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া থেকে শুরু করে বর্তমানে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নেতৃত্বে বিএনপি সেই একই নীতি ও অবস্থান অব্যাহত রেখেছে। ফিলিস্তিনের প্রতি সংহতি প্রকাশ করে সেখানকার যুদ্ধাহতদের জন্য বিএনপি ওষুধ পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানান মির্জা ফখরুল।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •