• মে ৩০, ২০২১
  • শীর্ষ খবর
  • 48
ইটভাটার ব্যবস্থাপককে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় মামলা

নিউজ ডেস্কঃ সিলেটের বালাগঞ্জ উপজেলার গহরপুরে ইটভাটার ব্যবস্থাপক ধীরাজ পালকে (৬০) তাঁর দপ্তরে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় মামলা হয়েছে। নিহত ধীরাজ পালের ছেলে প্রভাকর পালের করা অভিযোগ আজ রোববার হত্যা মামলা হিসেবে নথিভুক্ত করা হয়। মামলায় অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিদের আসামি করা হয়েছে।

আজ বালাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ নাজমুল হাসান বলেন, নিহত ব্যক্তির সৎকার শেষে পরিবারের পক্ষ থেকে শনিবার রাতে থানায় লিখিত অভিযোগ দেওয়া হয়। আজ সকালে মামলাটি নথিভুক্ত করে তদন্ত কর্মকর্তা নিযুক্ত করা হয়েছে।

সিলেট শহরতলির আলমপুরের বাসিন্দা ধীরাজ পালকে গত শুক্রবার দুপুরের দিকে দুর্বৃত্তরা কুপিয়ে হত্যা করে। পুলিশের প্রাথমিক তদন্তে বলা হয়, শুক্রবার বেলা ১টা ৩৫ মিনিট থেকে ১টা ৫১ মিনিটের মধ্যে হত্যাকাণ্ড ঘটে। তবে হত্যাকারী কারা, এ বিষয়ে কোনো সূত্র পায়নি পুলিশ। ধীরাজ পালের মাথার পেছনে, পায়ে, পেটে ধারালো অস্ত্রের কোপের চিহ্ন আছে।

তদন্তসংশ্লিষ্ট পুলিশ বলছে, ইটভাটাটি চারজনের মাধ্যমে পরিচালিত হচ্ছিল। ধীরাজ পাল সেখানে প্রায় আট বছর ধরে ব্যবস্থাপক পদে কর্মরত ছিলেন। মালিকপক্ষসহ ইটভাটার সহকারী ব্যবস্থাপক ও লাশ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া ছয়জনকে শুক্রবার রাতে থানায় নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। কিন্তু তাঁদের কথাবার্তা থেকে সন্দেহজনক কিছু পাওয়া যায়নি। ধীরাজ পাল সিলেটের দক্ষিণ সুরমার আলমপুর গ্রামের বাসিন্দা। পরিবারের সদস্যরা ধীরাজের সঙ্গে কারও পূর্বশত্রুতার কোনো তথ্য দিতে পারছেন না।

এদিকে আজ বেলা তিনটার দিকে বালাগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ নাজমুল হাসান বলেন, পরিবার কিংবা ইটভাটার লোকজন হত্যার ব্যাপারে কোনো তথ্য না দেওয়ায় খুনি শনাক্ত করার কাজটি বিলম্বিত হচ্ছে। তা ছাড়া ইটভাটাটি জনবসতিশূন্য হাওর এলাকায় হওয়ায় কোনো প্রত্যক্ষদর্শীও পাওয়া যাচ্ছে না। তবে পুলিশের একাধিক দল খুনি শনাক্তে তৎপর রয়েছে। ছয়জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। নতুন করে আরও কয়েকজনকে জিজ্ঞাসাবাদ করার প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •