• জুন ৩, ২০২২
  • শীর্ষ খবর
  • 202
কোম্পানীগঞ্জে ধানের চারা খাওয়ায় গরুর পায়ে কোপ, পরে মৃত্যু, থানায় মামলা

নিউজ ডেস্কঃ সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে ধানের চারা খাওয়ায় গরুর পায়ে দা দিয়ে কুপিয়ে বিচ্ছিন্ন করার অভিযোগ উঠেছে। গত ৩০ মে বিকেলে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার ভোলাগঞ্জ গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। পরে গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে গরুর মালিক ফয়জুর রহমান বাদী হয়ে মামলা করেছেন। গতকাল রাতে গরুটি মারা গেছে বলে জানা গেছে।

মামলায় ভোলাগঞ্জ গ্রামের হোসেন আহমদ (৫০) নামের এক ব্যক্তিকে আসামি করা হয়েছে। মামলা সূত্রে জানা গেছে, গত ৩০ মে নোয়াগাঁও গ্রামের ফয়জুর রহমান তাঁর একটি গরুকে ঘাস খাওয়ানোর জন্য ভোলাগঞ্জ গ্রামের ফারুক মিয়ার বাড়ির পাশের মাঠে বেঁধে রেখে আসেন। বিকেল চারটার দিকে তিনি খবর পান, গরুটিকে ভোলাগঞ্জ গ্রামের হোসেন আহমদ কুপিয়ে আহত করেছেন।

পরে ফয়জুর রহমান ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখেন গরুর বাম পা কেটে ফেলা হয়েছে। পরে ফয়জুর রহমান স্থানীয় লোকজনের মাধ্যমে জানতে পারেন, ধানের চারা খাওয়ায় হোসেন আহমদ গরুর পা কেটে নিয়েছেন। এ নিয়ে হোসন আহমদের সঙ্গে ফয়জুর রহমান বাগ্‌বিতণ্ডাও হয়েছে।

পরে এ ঘটনায় গতকাল দুপুরে ফয়জুর রহমান বাদী হয়ে হোসেন আহমদকে একমাত্র আসামি করে কোম্পানীগঞ্জ থানায় মামলা করেন। এজাহারে তিনি ওই গরুর দাম প্রায় ৮০ হাজার টাকা বলে উল্লেখ করেন।

অভিযোগের বিষয়ে জানতে হোসেন আহমদের মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলেও কোনো সাড়া মেলেনি।

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুকান্ত চক্রবর্তী বলেন, এ ঘটনায় লিখিত অভিযোগ পাওয়ার পর সেটি মামলা হিসেবে নেওয়া হয়েছে। এ ঘটনায় আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। তবে আজ শুক্রবার দুপুর ১২টা পর্যন্ত মামলায় কাউকে আটক কিংবা গ্রেপ্তার করা হয়নি বলে জানান তিনি।