• জানুয়ারি ১২, ২০২৩
  • শীর্ষ খবর
  • 198
চুনারুঘাটে গাছ চোরেরা পুড়িয়ে দিল বন বিভাগের অফিস

নিউজ ডেস্ক: হবিগঞ্জের চুনারুঘাট রেমা বন বিট এলাকার সেবা টিলা বন বিভাগের অফিস পুড়িয়ে দিয়েছে গাছ চোরেরা। এ সময় আগুনে পুড়ে গুরুতর আহত হয়েছেন বনপ্রহরী মাহমুদুর রহমান (৩৫) ও রাসেল কবির (৪০)। গুরুতর আহত মাহমুদুরকে চুনারুঘাট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

জানা যায়, মঙ্গলবার রাত ৮টায় রেমা বন বিট এলাকার সেবা টিলা বন বিভাগের অফিসে সংঘবদ্ধ গাছ চোরেরা আগুন লাগিয়ে দেয়। মুহূর্তে আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে যায় অফিস। বন বিট অফিস দুর্গম পাহাড়ি এলাকায় হওয়ায় অফিসের কোনো কিছুই রক্ষা করা যায়নি। জব্দকৃত অনেক মূল্যবান গাছসহ প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে বন বিভাগের এক কর্মকর্তা বলেন, মঙ্গলবার সকালে রেমা বিটের পেটনাকোলা এলাকায় উপজেলার বাসুল্লা গ্রামের আবুল মিয়ার ছেলে গাছ চোরদের গডফাদার সোহেলসহ ১০ থেকে ১৫ জনের একদল চোর দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংরক্ষিত বনে গাছ কাটতে আসে। তাদের উপস্থিতি টের পেয়ে বন বিভাগের লোকজন কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোড়ে। পরে চোররা তাদের অস্ত্র রেখেই পালিয়ে যায়। তারা লোক মারফত বিট অফিসে খবর পাটায় গাছ কাটতে না দিলে বন বিভাগের অফিস পুড়িয়ে দেবে।

হবিগঞ্জের সহকারী বন সংরক্ষক মারুফ হোসেন বলেন, বন বিভাগের অফিস ঘর পুড়িয়ে দেওয়ার ঘটনায় কাওকে ছাড় দেওয়া হবে না। এ ব্যাপারে বন বিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

কালেঙ্গা রেঞ্জ কর্মকর্তা খলিলুর রহমান জানান, গাছ কাটতে চোরদের বাধা দেওয়ায় তারা ক্ষিপ্ত হয়ে এ ঘটনা ঘটিয়েছে। এ ব্যাপারে ১০ থেকে ১১ জনকে আসামি করে চুনারুঘাট থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

চুনারুঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আলী আশরাফ চুনারুঘাট থানায় মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।