• জুলাই ১৮, ২০২৩
  • শীর্ষ খবর
  • 187
হবিগঞ্জে পাহাড় থেকে হাত-পা বাঁধা যুবকের লাশ উদ্ধার

হবিগঞ্জ প্রতিনিধিঃ হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলায় নোয়াপাড়া এলাকার গহীন পাহাড় থেকে নিখুঁজের চার দিন পর বাবুল মিয়া (৪৬) নামের একজনের লাশ উদ্ধার করেছে থানাপুলিশ। পরিবারের দাবি- তাকে হত্যা করা হয়েছে।

বাবুল মিয়া নোয়াপাড়া ইউনিয়নের ইটাখোলা গ্রামের মৃত ছায়েব আলী সর্দারের ছেলে।

জানা যায়, গত ১৫ জুলাই সকালে বাবুল মিয়া নোয়াপাড়া পাহাড় এলাকায় প্রতিদিনের মত গরু চড়াতে যান। কিন্তু বেলা শেষে গরুগুলো ফিরে আসলেও বাবুল মিয়া ফিরে আসেননি। পরে পাহাড়ের বিভিন্ন এলাকায় খোঁজাখুঁজি করে তাকে না পেয়ে তার স্ত্রী মাধবপুর থানায় একটি সাধারণ ডায়রি করেন।

মঙ্গলবার (১৮ জুলাই) স্থানীয় লোকজন গহীন পাহাড় এলাকায় বরুরা নামক স্থানে হাত পা ও মুখ বাধা অবস্থায় একটি লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেন। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করে এবং লাশটি বাবুল মিয়ার বলে শনাক্ত হয়। লাশটি টরে ময়নাতন্তের জন্য হবিগঞ্জ হাসপাতালে প্রেরণ করে পুলিশ।

নিহতের স্ত্রী মাহমুদা বেগম বলেন- আমার স্বামীকে পরিকল্পিতভাবে হাত-পা বেঁধে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছে। আমি হত্যাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি।

মাধবপুর থানার অফিসার্স ইনচার্জ আব্দুর রাজ্জাক জানান- অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করে ময়না তন্তের জন্য হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।ময়না তন্তের রিপোর্ট না আসা পর্যন্ত এ ব্যাপারে কোনো কিছু বলা যাবে না।