• আগস্ট ৮, ২০২৩
  • খেলাধুলা
  • 136
বিশ্বকাপ ট্রফি ঘিরে উচ্ছ্বাস

স্পোর্টস ডেস্ক: বড় কোনো আসরের আগে ক্লাইমেক্মে ভরপুর থাকে বাংলাদেশের ক্রিকেট। যথারীতি এবারও তার ব্যত্যয় ঘটেনি। ওয়ানডে বিশ্বকাপের আর দুমাসও বাকি নেই। বৈশ্বিক ক্রীড়া মহাযজ্ঞ ঘিরে দলগুলো যখন শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতিতে ব্যস্ত, বাংলাদেশের তখনো ঠিক হয়নি কার হাতে উঠবে নেতৃত্বের আর্মব্যান্ড। নেতৃত্ব ইস্যুতে বিসিবিও যে কিছুটা অস্বস্তিতে আছে, তা এখন স্পষ্ট অনেকটাই।

অথচ সুপার লিগে দাপট দেখিয়ে সরাসরি বিশ্বকাপ নিশ্চিত করা বাংলাদেশকে নিয়ে বিশ্বমঞ্চে বড় স্বপ্ন লাল-সবুজের সমর্থকদের। যার কিছুটা উত্তাপ টের পাওয়া যাচ্ছে বিশ্বকাপ ট্রফির বাংলাদেশ সফর ঘিরে। ১০০ দিনের বিশ্ব ভ্রমণের অংশ হিসেবে এখন বাংলাদেশে অবস্থান করছে আসন্ন ভারত বিশ্বকাপের ট্রফি। ট্যুরের প্রথম দিনে পদ্মাসেতু দর্শনের পর আজ হোম অব ক্রিকেট গ্রাউন্ডে নেওয়া হয়েছিল ট্রফিটি। ক্রিকেট বিশ্বের শ্রেষ্ঠত্বের নিদর্শনটি ঘিরে ক্রিকেটারদের উচ্ছ্বাস ছিল চোখে পড়ার মতোন।

গেল কদিন ধরেই ঢাকার আকাশের মন ভার। মেঘলা দিনেও যেন মিরপুরে দ্যুতি ছড়ালো বিশ্বকাপ ট্রফি। সকালে শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে ক্রিকেটারদের ফটোসেশনের জন্য রাখা হয় ট্রফিটি। ড্রেসিংরুম থেকে হাস্যোজ্জল মুশফিকুর রহিম বয়ে নিয়ে আসেন ট্রফি। এরপর জাতীয় দলের খেলোয়াড়েরা একে একে ট্রফির সঙ্গে ছবি তুললেন। ছবি তোলার পর ক্রিকেটারদের অনেকেই অনুশীলনে যোগ দিলেন। তবে তাসকিন আহমেদ, তানজিম হাসান, শামীম হোসেন, তানজিদ হাসান ও রিশাদ হোসেন মঞ্চেই ছিলেন আরও বেশ কিছুটা সময়।

ট্রফিটা নিয়ে বাড়তি উৎসাহ দেখা গেল পেসার তাসকিন আহমেদেরও। অনুশীলনে ফেরার আগে খুঁটিয়ে খুঁটিয়ে দেখছিলেন। পাশে দাঁড়ানো পরিচিত এক চিত্র সাংবাদিককে উদ্দেশ্য করে বললেন, ‘তাড়াতাড়ি ছবিটা তোলেন ভাই’। অন্যদিকে তানজিম সাকিব সতীর্থদের ছবি তুলে দিচ্ছিলেন। এরপর নিজেই ট্রফির সঙ্গে ছবি তুললেন। যুব দলের হয়ে বিশ্বকাপ জিতেছিলেন শামীম পাটোয়ারী। হাত উঁচিয়ে ধরেছেন মর্যাদার ট্রফিটাও।

অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপজয়ী দলের এই সদস্য এখন নিয়মিত খেলছেন জাতীয় দলে। ক্রিকেটারদের ফটোসেশনে আবেগ চেপে রাখতে পারলেন না তরুণ এই ক্রিকেটার। নিঃশ্বাস দূরত্বে বিশ্বকাপ পেয়ে চুমু এঁকে দিলেন তাতে। পরে দুই বিশ্বকাপের ছবি একত্র করে ফেসবুকে তা পোস্টও করেছেন তিনি। ক্যাপশনে লিখলেন, ‘এমন কাজ হাজার বা তারচেয়ে বেশিবার করতে ভালোবাসি। খুব দ্রুতই (আবার হবে), ইনশাআল্লাহ!’ এমন বার্তা দিয়ে শামীম যে আরও একবার বিশ্বকাপ জেতার প্রত্যাশা করেছেন তা অনায়াসেই বলা চলে।

ট্রফি ঘিরে রোমাঞ্চ ছুঁয়ে গেছে সাবেক ক্রিকেটারদেরও। সাবেক অধিনায়ক ও নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন আজ এক প্রতিক্রিয়ায় বলেন, ‘ট্রফিটা ছুঁতে পেরে খুব ভালো লাগছে, একটা স্বপ্ন তো থাকে। যদি জয়ের পরে উন্মুক্ত ট্রফিটা ধর‍তে পারতাম তাহলে আরও ভালো লাগবে। একটু রোমাঞ্চ অনুভব করছি। আমাদের জন্য বিশ্বকাপ মনে হচ্ছে আজকে শুরু হয়ে গেল।’