• ফেব্রুয়ারি ৯, ২০২৪
  • শিক্ষাঙ্গন
  • 32
শাবিতে চেয়ারে বসা নিয়ে ছাত্রলীগের দুই কর্মীর হা তা হা তি, হলে উত্তেজনা

শাবি প্রতিনিধিঃ শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলে রিডিংরুমে চেয়ারে বসা ও এসি অন-অফ নিয়ে দুই ছাত্রলীগ কর্মীর মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে। এর জেরে মধ্যরাতে জিআই পাইপ নিয়ে ছাত্রলীগ কর্মীদেরকে মহড়া দিতে দেখা গেছে।

বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সৈয়দ মুজতবা আলী হলে নৃবিজ্ঞান বিভাগের ২০১৭-১৮ সেশনের শিক্ষার্থী ও শাখা ছাত্রলীগ নেতা মামুন শাহ সমর্থক রিয়াদ মিয়া এবং বাংলা বিভাগের একই সেশনের শিক্ষার্থী ও শাখা ছাত্রলীগ নেতা নাজমুল হুদা শুভয়ের সমর্থক জয়পালের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে।

খবর পেয়ে প্রক্টরিয়াল বডি, সহকারী প্রভোস্ট, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য ও ছাত্রলীগের নেতারা গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করেন। হল কর্র্তৃপক্ষ জানান, ঘটনায় জড়িত দুই ছাত্রকেই লিখিত অভিযোগ দিতে বলা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী শিক্ষার্থীরা জানান, বৃহস্পতিবার সৈয়দ মুজতবা আলী হলের নিচতলার রিডিংরুমে রিয়াদের সঙ্গে চেয়ারে বসা ও এসি চালু-বন্ধ নিয়ে জয় পালের মধে প্রথমে তর্কাতর্কি হয়। এক পর্যায়ে উত্তপ্ত বাক্য বিনিময় হলে দুজনের মধ্যে হাতাহাতি পর্যন্ত গড়ায়। ঘটনার বিষয়ে জানাজানি হলে ছাত্রলীগের সমর্থকরা জিআই পাইপ নিয়ে মহড়া দেয়। এসময় হলের দরজা জানালায় সজোরে আঘাত করেন তারা। তাদেরকে জয় বাংলা স্লোগান দিতে দেখা যায়। এতে পুরো হলে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। শিক্ষার্থীদের মধ্যে আতংক বিরাজ করতে দেখা যায়। এ বিষয়ে জানতে মুঠোফেনে কল দিলে রিয়াদ ও জয়পালের কোনো সাড়া পাওয়া যায়নি।

এ ব্যাপারে মামুন শাহ ও নাজমুল হুদা শুভ জানান, হল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি সমাধান করবেন।

সৈয়দ মুজতবা আলী হলের প্রভোস্ট অধ্যাপক আবু সাঈদ আরফিন খান বলেন, ঘটনায় জড়িত দুই ছাত্রই নির্দোষ দাবি করছে। তাদেরকে লিখিত অভিযোগ দিতে বলা হয়েছে। প্রভোস্ট বডির মিটিংয়ে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।