• এপ্রিল ৩, ২০২৪
  • জাতীয়
  • 46
৭ জানুয়ারি নির্বাচন দেশের ৯৫ শতাংশ মানুষ প্রত্যাখ্যান করেছে

নিউজ ডেস্কঃ বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, ‘বিএনপির পক্ষ থেকে ডাক ছিল নির্বাচন বয়কট ও ভোট বর্জনের। সেই ডাকে সাড়া দিয়ে ৯৫ শতাংশ মানুষ ভোট না দিয়ে নির্বাচনকে প্রত্যাখ্যান করেছে।’

বুধবার (৩ এপ্রিল) উত্তরা দিয়াবাড়ীতে উত্তরা পশ্চিম থানাধীন ১ ও ৫১ নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির ইফতার ও দোয়া মাহফিল পূর্ব আলোচনা সভায় আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন।

আমাদের আন্দোলন চলছে, নতুনভাবে আন্দোলনের কিছু নেই উল্লেখ করে বিএনপির সিনিয়র নেতা বলেন, এই ৯৫ শতাংশ মানুষ আমাদের আন্দোলনের অংশ। গণতন্ত্রকামী সবাই এই আন্দোলনে আছে।

‘৭ তারিখের আগে বিএনপির আন্দোলন যত শক্তিশালী ছিল, পরে তা আরও বেশি বেগবান ও শক্তিশালী হয়েছে’— যোগ করেন তিনি।

আমীর খসরু বলেন, বাকী যে ৫ শতাংশের মধ্যে জাতীয় পার্টি বলেছে ভোট হয়নি, আওয়ামী লীগের মনোনীত যারা প্রার্থী ছিলেন যারা হেরে গেছেন, তারাও বলেছেন নির্বাচন হয়নি।

তিনি বলেন, আগামীতে যে আন্দোলন আসছে, সেই আন্দোলন ওয়ার্ড লেভেল থেকে শুরু করতে হবে। ওয়ার্ড লেভেল থেকে সুনামি করতে হবে। সেই আন্দোলনে আওয়ামী সরকারের পতন নিশ্চিত হবে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির সদস্য সচিব আমিনুল হক বলেন, দেশে গণতন্ত্র চর্চা নেই, দেশের বিচার বিভাগ, বাক স্বাধীনতা, মানুষের ভোটাধিকার নেই। জনগণের কোনো কথাকেই তারা তোয়াক্কা করছে না।

এসময় উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক আনোয়ারুজ্জামান আনোয়ার, মহানগর সদস্য আফাজ উদ্দীন আফাজ, মো. ইউসুফ, এবিএমএ রাজ্জাক, উত্তরা পশ্চিম থানা বিএনপির নেতা মো. আব্দুস ছালাম, তুরাগ থানা বিএনপির আহ্বায়ক আমান উল্লাহ ভূইয়া, সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক হারুন অর রশীদ খোকা প্রমুখ।