• জুন ৪, ২০২৪
  • শীর্ষ খবর
  • 10
আশ্রয় কেন্দ্রে খাবার বিতরণ করেন মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ইমদাদ চৌধুরী

নিউজ ডেস্ক: সিলেট মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ইমদাদ হোসেন চৌধুরী বলেছেন, “জাতির যে কোন দুর্যোগে বিএনপি সব সময় জনগণের পাশে ছিল আছে এবং থাকবে। হাজার হাজার মামলায় লাখো লাখো নেতাকর্মী আসামী হয়েও বিএনপি পালিয়ে যায়নি।

সিলেটের লাখো লাখো মানুষ পানিবন্দী অবস্থায় অসহায় জীবন যাপন করছেন। সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় বন্যার্ত মানুষ একটু সহানুভুতি পেতে পারে। দলমত নির্বিশেষে বন্যার্ত মানুষের কল্যাণে এগিয়ে আসতে হবে।”

তিনি আরো বলেন, ‘বিএনপি ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশে বিএনপি নেতাকর্মীরা মানুষের পাশে আছে এবং সহযোগিতা করে যাচ্ছে। সেই ধারাবাহিকতায় আমরাও ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করছি। আশ্রয় কেন্দ্র সহ পানিবন্দি মানুষের বাড়িতে গিয়ে সর্বশেষ সকল খবর নিচ্ছি।’

তিনি বলেন, ‘একক ভাবে কোনো দল বা ব্যক্তির পক্ষে এতো মানুষকে সহযোগিতা করা সম্ভব না। সরকারকেই সেই দায়িত্ব নিতে হবে। কিন্তু বন্যাকালে বর্তমান সরকার সেই দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ। জনগণের ভোটে নির্বাচিত নয় বলেই জনগণের সঙ্কটে তাদের ভূমিকা প্রশ্নবিদ্ধ। বন্যা মোকাবেলায় সরকারের সকল পদক্ষেপ ব্যর্থ।’

তিনি সরকারের প্রতি বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত মানুষকে পর্যাপ্ত ত্রাণ ও অর্থ সহযোগিতা প্রদান ও কৃষি পুনর্বাসনে পদক্ষেপ নেয়ার দাবি জানান।

তিনি মঙ্গলবার (৪ জুন) বিএনপি ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশে সিলেট নগরীর কিশোরী মোহন সরকারি বালক প্রাথমিক বিদ্যালয় ও উমরশাহ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় আশ্রয় কেন্দ্রে পানিবন্দি মানুষের মধ্যে শুকনো খাবার বিতরণ কালে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন- মহানগর বিএনপির সাবেক যুগ্ম আহবায়ক সাবেক কাউন্সিলর সৈয়দ মিছবাহ উদ্দিন, মহানগর বিএনপির সাবেক যুগ্ম আহবায়ক সৈয়দ মঈন উদ্দিন সুহেল, মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের আহবায়ক মাহবুবুল হক চৌধুরী, ওয়ার্ড বিএনপির সভাপতিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আব্দুর রহিম মল্লিক, শুয়াইবুর রহমান সুয়েব, খয়রুল ইসলাম খায়ের, সাধারণ সম্পাদকদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন রফিকুল ইসলাম রফিক, সাব্বির আহমদ, আব্দুস সবুর রাসেল, রহিম আলী রাশু, আব্দুল মালিক শেকু, মো. শাহীন আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদকদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সালেক আহমদ, ইফতেখার আহমদ পাবেল, মতিউর রহমান শিমুল, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা টিটন মল্লিক, মহানগর ছাত্রদলের সাংগঠনিক সম্পাদক রুবেল ইসলাম, ২২নং ওয়ার্ড বিএনপির যুদ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুল আজিজ মুন্না, কোষাধ্যক্ষ আজিজ মোহাম্মদ কায়সার, ২১ নং ওয়ার্ড বিএনপির সহ-সাগঠনিক সম্পাদক আব্দুল হাশিম, ১৭নং ওয়ার্ড বিএনপির যুব বিষয়ক সম্পাদক সুহেল আহমদ, যুবদল নেতা লায়েক আহমদ, আরিফুল ইসলাম, আক্তার আহমদ প্রমুখ।